১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ ইং, বুধবার

ভ্রমণে ড্রোন ব্যবহার, জেনে নিন আইন

আপডেট: জুলাই ৭, ২০১৯

ফেইসবুক শেয়ার করুন

ফটোগ্রাফার, ভ্রমণ লেখক, ভিডিও নির্মাতাদের জন্য ড্রোন একটি গুরুত্বপূর্ণ বস্তু। যা তাদের পেশায় সাহায্য করে। তবে অনেক দেশে ড্রোন নিয়ে ভ্রমণ করা ঝুঁকিপূর্ণ। কারণ দেশ অনুযায়ী যন্ত্রটি ব্যবহারে বিভিন্ন আইন আছে। তাই ড্রোন নিয়ে কোথাও ভ্রমণের আগে ভালোভাবে সেখানকার আইন জেনে নেওয়া উচিত।

ড্রোনের নিয়ম: ড্রোনটি আকাশে ওড়ানোর আগে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে অনুমতি নেওয়া জরুরি। মনে রাখবেন, ‘নো ফ্লাই জোন’-এ ড্রোন ওড়ানো নিষেধ। যেমন- ভারতের বিমানবন্দরগুলো, আন্তর্জাতিক সীমান্ত, দিল্লির বিজয় চক, প্রতিটি রাজ্যের সম্পাদকীয় ভবন, মিলিটারি এলাকাগুলো ‘নো ফ্লাই জোন’।

> আরও পড়ুন- বিমানে হাতব্যাগে যেসব জিনিস নেওয়া যাবে না

বিমানে কোথায় রাখবেন: ড্রোনটিকে সবসময় চেক-ইন লাগেজে রাখবেন, কেবিন লাগেজে নয়। ড্রোনে ব্যাটারি ঢুকিয়ে রাখবেন না। ড্রোনের লিথিয়াম পলিমার ব্যাটারিগুলো কেবিন লাগেজে রাখবেন। এছাড়া একটি অগ্নিনির্বাপক চার্জিং ব্যাগ নিতে পারেন।

ড্রোনের আকার: কোথাও ভ্রমণের জন্য ড্রোন ছাড়াও অনেক জিনিস নিতে হয়। তাই বড় ড্রোনের চেয়ে একটি ছোট স্থানান্তরযোগ্য ড্রোন ব্যবহার করা বুদ্ধিমানের কাজ।

> আরও পড়ুন- বিমানের টিকিট বুকিংয়ে খরচ কমানোর ৭ টিপস

অতিরিক্ত ব্যাটারি: ড্রোন নিয়ে গেলে অবশ্যই অতিরিক্ত ব্যাটারি রাখবেন। কারণ ড্রোনের ব্যাটারি ব্যাকআপ খুব কম। এছাড়া তা চার্জ হতে অনেক সময় লাগে।

জনবহুল স্থানে ওড়াবেন না: এটি ওড়ানোর জন্য যতটা পারা যায় খালি স্থান নির্বাচন করুন। কারণ এটি একটি মেশিন এবং এটি নষ্ট হতে পারে। তাই নিরাপত্তার স্বার্থে ফাঁকা জায়গায় ওড়ানো উচিত।

35 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

আরও পড়ুন

Frank Dinar