১৮ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার

কুলাউড়ায় পুলিশ-জনতার সহায়তায় ডাকাতি প্রতিরোধ

আপডেট: ডিসেম্বর ১৪, ২০২০

ফেইসবুক শেয়ার করুন

এস আর অনি চৌধুরী :: অবশেষে কুলাউড়া থানা পুলিশ ও জনতার প্রতিরোধে ডাকাতদের কবল থেকে রক্ষা পেয়েছে এক পরিবার। গত রোববার দিবাগত রাতে উপজেলার লস্করপুর এলাকায় ডাকাতদল হানা দিলে পুলিশ-জনতার প্রতিরোধে রক্ষা পায় ঐ এলাকার প্রথম শ্রেণির বিশিষ্ট ঠিকাদার মুহিবুর রহমান কোকিলের পরিবার।
কুলাউড়া থানার ওসি বিনয় ভূষণ রায় জানান, গত রোববার মধ্য রাতে পুলিশ কুলাউড়ায় ডাকাত প্রবেশের গোপন সংবাদ পেয়ে ডাকাতদলকে প্রতিরোধের জন্য তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা গ্রহণ করে। একপর্যায়ে পুলিশ উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় পুলিশের টহল জোরদার করে। পাশাপাশি পুলিশের পক্ষ থেকে সকল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান-মেম্বারদের কাছে এলাকায় ডাকাত প্রবেশের খবর দিয়ে সতর্ক থাকার জন্য জানায়। খবর পেয়ে সংশ্লিষ্ট ইউনিয়নের চেয়ারম্যান-মেম্বাররা বিভিন্ন মসজিদের মাইকে মাইকিং করে এলাকাবাসীদের ডাকাত প্রবেশের সতর্কতামূলক ব্যবস্থা গ্রহণের আহবান জানায়। ডাকাত প্রবেশের মাইকিং শুনে বিভিন্ন এলাকায় একদিকে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। অপরদিকে ডাকাত প্রতিরোধে লোকজন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচার করে ও লাঠিসোটা নিয়ে রাস্তায় বের হয়ে পড়েন। একপর্যায়ে ডাকাতদল কুলাউড়া পৌরসভার লস্করপুর এলাকার মুহিবুর রহমান কোকিলের বাড়িতে ডাকাতির চেষ্টা চালিয়ে ব্যর্থ হয়। পুলিশ-জনতার প্রতিরোধে ডাকাতদল পালিয়ে যেতে বাধ্য হয়। এতে করে ডাকাতদলের হাত থেকে ঐ পরিবারের জানমাল রক্ষা পায়।
ওসি বিনয় ভূষণ রায় জানান, পুলিশ তাৎক্ষণিক ব্যবস্থা না নিলে ডাকাতদল ডাকাতি করে পালিয়ে যেতে সক্ষম হত। তিনি আরও জানান, শীত মৌসুমে ডাকাতদের উপদ্রব বৃদ্ধি পায়। তাই ঐ সময় পুলিশ-জনতা এক হয়ে সতর্ক ও প্রতিরোধ গড়ে তুললে ডাকাতদের কবল থেকে জনগণের জানমাল রক্ষা পাবে।

578 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন