২০শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং, সোমবার

সিলেট রেলের ৮ জনকে শাস্তিমূলক বদলি

আপডেট: ডিসেম্বর ২৮, ২০১৯

ফেইসবুক শেয়ার করুন

টিকেট কালোবাজারি, যাত্রীদের সঙ্গে দুর্ব্যবহার, যাত্রী হয়রানিসহ নানা অনিয়মের অভিযোগে গোয়েন্দা সংস্থার দেয়া প্রতিবেদনের ভিত্তিতে এবার সিলেট রেলওয়ে স্টেশনের ম্যানেজার মো. আতাউর রহমানসহ ৮ জনকে শাস্তিমূলক বদলির আদেশ দেয়া হয়েছে।

দীর্ঘদিন থেকে এক অঞ্চল থেকে অন্য অঞ্চলে বদলি বন্ধ থাকলেও দেশব্যাপী রেলওয়ের যাত্রী হয়রানি, টিকেট কালোবাজারি ও দুর্নীতি দূর করতে কঠোর পদক্ষেপের অংশ হিসেবেই তাদেরকে রেল বিভাগ (পূর্বাঞ্চল) সিলেট থেকে (পশ্চিমাঞ্চল) রাজশাহী বদলি করা হয়।
গত মঙ্গলবার বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালকের কার্যালয়ের সংস্থাপন শাখা-১ এর উপ-সহকারী পরিচালক মো. হাসিবুল ইসলাম স্বাক্ষরিত এক দাপ্তরিক আদেশে সিলেট রেলওয়ের স্টেশন ম্যানেজার মো. আতাউর রহমানকে বদলির এ নির্দেশ প্রদান করা হয়েছে। পরবর্তী আদেশ না দেয়া পর্যন্ত তাকে রেলওয়ে মহাব্যবস্থাপক (পশ্চিম) রাজশাহী দপ্তরে ন্যস্ত করার আদেশ দেয়া হয়।

অপরদিকে একই দিন বাংলাদেশ রেলওয়ের মহাপরিচালকের কার্যালয়ের সংস্থাপন শাখা-৩ এর উপ-পরিচালক মো. সৈয়দ হোসেন স্বাক্ষরিত অপর এক দাপ্তরিক সিলেট রেলওয়ের আরও ৭ জন কর্মচারীকে বদলির আদেশ প্রদান করা হয়েছে।

দাপ্তরিক আদেশ থেকে জানা যায়, বলদিকৃত কর্মচারীরা হলেন, সিলেট রেলওয়ে স্টেশনের বুকিং সহকারী রেজাউর রহমান, মাসুদ সরকার, সুজন দত্ত, দুলাল মিয়া, স্বস্তি রঞ্জন দাস, আরএনবির হাবিলদার জানে আলম, রেলওয়ে স্টেশনের রেস্ট হাউসের বাবুর্চি (কুক, কাম বেয়ারা) আবু তাহের। তাদের সকলকে বাংলাদেশ রেলওয়ে মহাব্যবস্থাপক (পশ্চিম) রাজশাহী দপ্তরে ন্যস্ত করা হয়েছে।

দীর্ঘদিন থেকে সিলেট রেলওয়ে স্টেশন ম্যানেজার আতাউর রহমানের নেতৃত্বে বিভিন্ন কর্মচারীদের নিয়ে টিকিট কালোবাজারীর একটি বড় সিন্ডিকেট গড়ে উঠার অভিযোগ ছিল। এমনকি ভিআইপিদের জন্য জন্য বরাদ্দকৃত ১০ শতাংশ সিটের অধিকাংশই কালোবাজারে বিক্রি করার অভিযোগও ছিল তার বিরুদ্ধে। কিন্তু নানা অভিযোগ থাকলেও তার প্রভাব এতটাই ছিল যে সকল কিছুকেই যেন তিনি নস্যি করে চলতেন।

কেবল তাই না, তার আশির্বাদপুষ্ট বদলিকৃত এসব কর্মচারীরাও ছিলেন বেপরোয়া। রেলওয়ে স্টেশনজুড়ে ছিল তাদের বিশাল প্রভাব। নানা অভিযোগ পর্যালোচনা করে একটি প্রতিবেদন তৈরি করে সম্প্রতি বাংলাদেশ রেলওয়ে মন্ত্রণালয়ে জমা দেয় গোয়েন্দা সংস্থা। প্রতিবেদন জমা দেয়ার সঙ্গে সঙ্গে তাৎক্ষণিকভাবে তাদের শাস্তিমূলক বদলির আদেশ দেয়া হয়।

তবে বদলির বিষয়টি স্বীকার করলেও শাস্তিমূলক বদলির বিষয়টি এড়িয়ে গেছেন বদলি হওয়া স্টেশন ম্যানেজার মো. আতাউর রহমান। তিনি বলেন, বদলির নির্দেশ আমি অবগত হয়েছি। বাকিটা কর্তৃপক্ষ জানেন।

10 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Frank Dinar