২৮শে নভেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার

বাঁচানো গেল না কুলাউড়ায় চলন্ত ট্রেনে উঠতে গিয়ে হাত-পা হারানো সেই বৃদ্ধকে

আপডেট: অক্টোবর ২৩, ২০২০

ফেইসবুক শেয়ার করুন

ডেস্ক রিপোর্ট :: কুলাউড়া রেলওয়ে জংশনে চলতি ট্রেনে উঠার সময় চাকার নিচে পড়ে হাত-পা হারানো সেই বৃদ্ধকে শেষ পর্যন্ত বাঁচানো গেল না। ১৮ দিন চিকিৎসাধীন থাকার পর বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) রাতে সিলেট আল-হারামাইন হাসপাতালে তিনি মারা যান।

দুর্ঘটনার শিকার ওই বৃদ্ধ কমলগঞ্জ উপজেলার শমসেরনগর এলাকার তোয়াকুল মিয়া (৬০)।

জানা যায়, গত (৫ অক্টোবর) দুপুর সোয়া ১২টার দিকে সিলেটগামী পারাবত এক্সপ্রেস ট্রেনটি কুলাউড়া স্টেশন থেকে ছাড়ার সময় ওই বৃদ্ধ দৌড়ে ট্রেনে উঠার চেষ্টা করছিল। এ সময় ট্রেনের হাতল থেকে হাত ছুটে গেলে ভারসাম্য হারিয়ে ট্রেনের চাকার নিচে পড়ে যান তিনি।

এরপর গুরুতর আহত অবস্থায় স্টেশন মাষ্টারের সহযোগিতায় স্থানীয় লোকেরা তাকে কুলাউড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠান। অবস্থায় গুরুতর হওয়ায় ওই বৃদ্ধকে সিলেটে প্রেরণ করা হয়। সেখানে ১৮দিন চিকিৎসাধীন থাকাবস্থায় বৃহস্পতিবার রাতে তোয়াকুল মিয়া মারা যান।

চিকিৎসাধীন থাকাবস্থায় বৃহস্পতিবার রাতে তোয়াকুল মিয়া মারা গেছেন বলে আল-হারামাইন হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ এ প্রতিবেদককে নিশ্চিত করেছেন।

304 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন