১৫ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার

কুলাউড়া উপজেলা চেয়ারম্যানসহ ইউএনও’র কোভিড-১৯ প্রতিষেধক গ্রহন

আপডেট: ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২১

ফেইসবুক শেয়ার করুন

ডেক্স রিপোর্ট :: কুলাউড়া উপজেলায় করোনা ভাইরাস প্রতিষেধক প্রদান (কোভিড ভ্যাকসিন) কার্যক্রম রোববার উদ্বোধনের পর ৬ষ্ট দিবসে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত মোট ৯৬০ জন টিকা গ্রহন করেছেন। বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের টিকাদান কেন্দ্রে কুলাউড়া উপজেলা চেয়ারম্যান একেএম সফি আহমদ সলমান ও কুলাউড়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার এটিএম ফরহাদ চৌধুরীসহ মোট ৩৫০ জন কোভিড-১৯ প্রতিষেধক টিকা গ্রহন করেছেন। টিকা গ্রহনের পর উপজেলা চেয়ারম্যান সফি আহমদ সলমান ও কুলাউড়া ইউএনও এটিএম ফরহাদ চৌধুরী তাদের প্রতিক্রিয়ায় জানান মানুষের করোনা রোগের প্রতিষেধক হিসেবে ভ্যাকসিন দেয়ার কার্যক্রমে অংশ নিতে পেরে আমরা আনন্দিত। গুজবে কান না দিয়ে মরণঘাতী করোনা ভাইরাসের আক্রমণ থেকে সুরক্ষা পেতে কোভিড ভ্যাকসিন নেয়ার কোন বিকল্প নেই। তাই সবাইকে করোনা টিকা নিতে রেজিস্ট্রেশন করার আহ্বান জানান।
গত শনিবার সুলতান মোহাম্মদ মনসুর আহমদ এমপি ঢাকা থেকে ভার্চুয়ালযোগে কোভিড ভ্যাকসিন প্রদান কার্যক্রমের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধনের পর ১ম টিকা গ্রহণ করেন কোভিড-১৯ ভ্যাকসিন উপজেলা কমিটির সদস্য সচিব উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কর্মকর্তা ডা. নুরুল হক। এরপর থেকে ইতিমধ্যে সরকারী-আধা সরকারী কর্মকর্তা-কর্মচারী, শিক্ষক, সাংবাদিকসহ বিভিন্ন পেশাজীবিরা স্বতঃস্ফুর্তভাবে টিকা গ্রহনের জন্য নিবন্ধন করে যাচ্ছেন। করোনা ভাইরাস প্রতিষেধক প্রদান (কোভিড ভ্যাকসিন) কমিটির সদস্য সচিব উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কর্মকর্তা ডা. নুরুল হক জানান, বৃহস্পতিবার পর্যন্ত ২৪৫৪ জন ভ্যাকসিনের জন্য নাম রেজিষ্ট্রেশন করেছেন। ্এরমধ্যে বৃহস্পতিবার পর্যন্ত মোট ৯৬০ জন টিকা গ্রহন করেছেন। টিকা গ্রহণকারী সবাই সুস্থ রয়েছেন। কারো কোন পাশর্^ প্রতিক্রিয়া দেখা দেয় নি। কুলাউড়া উপজেলায় ১ম পর্যায়ে কোভিড ভ্যাকসিন প্রদানের জন্য সরকার থেকে ১১ হাজার ৭০০ ডোজ বরাদ্ধ করা হয়েছে বলে তিনি জানান।

165 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন