১৮ই অক্টোবর, ২০১৯ ইং, শুক্রবার

প্রধানমন্ত্রী ফোনে জানতে চাইলেন, আফিফকে এত পরে নামানো হলো কেন?

আপডেট: সেপ্টেম্বর ১৪, ২০১৯

ফেইসবুক শেয়ার করুন

টেস্ট শিশু আফগানিস্তানের কাছে করুণ পরাজয়ের পর অবশেষে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে স্বস্তির এক জয়। তাও সিনিয়র, পরিণত এবং তারকা ক্রিকেটারদের হাত ধরে নয়। তরুণ আফিফ হোসেন ধ্রুব আর মোসাদ্দেক হোসেন সৈকতের চওড়া ব্যাটে ভর করে।

শুক্রবার রাতে জিম্বাবুয়েকে ৩ উইকেটে হারানোর পর শেরে বাংলায় আনন্দের ফল্গুধারা বইতে শুরু করে। টাইগারদের ড্রেসিং রুমে আবার খুশির ফোয়ারা। আর প্রেসিডেন্ট বক্স বাদ দিয়ে গ্র্যান্ডস্ট্যান্ডে বসা বিসিবি বিগবস নাজমুল হাসান পাপনের চোখে-মুখে স্বস্তির পরশ।

এমন যখন অবস্থা, ঠিক তখনই প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ফোন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনের কাছে। দলকে শুভেচ্ছা ও অভিনন্দন এবং শুভকামনা জানানোর পাশাপাশি তরুণ আফিফ হোসেন ধ্রুবকেও অভিনন্দনে সিক্ত করেছেন প্রধানমন্ত্রী।

খেলা শেষে ম্যাচ সেরা আফিফ প্রেস কনফারেন্সে সে কথা জানিয়ে বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ফোন করে দলকে এবং আমাকে শুভেচ্ছা জানিয়েছেন।

গ্র্যান্ডস্ট্যান্ডের সামনে উপস্থিত সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপে প্রধানমন্ত্রীর ফোনের কথা সাংবাদিকদের জানিয়ে বিসিবি প্রধান নাজমুল হাসান পাপন বলেন, সাকিব ও মুশফিক অল্প সময় ও সংগ্রহে আউট হবার পর মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আমাকে ফোন দিয়ে বললেন, ‘এসব কি হচ্ছে? তারপর আফিফের সাহসী, স্বচ্ছন্দ ও সাবলীল ব্যাটিং দেখে বলেন, আফিফকে কেন এত দেরিতে এবং নিচে নামানো হলো?’

প্রধানমন্ত্রী ফোনে জানতে চাইলেন, আফিফকে এত পরে নামানো হলো কেন?

বিসিবি সভাপতি আরও বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী খেলার মাঝেই ফোন করছিলেন। বলছিলেন, ‘পাপন এইটা কী হচ্ছে? এ রকম হচ্ছে কেন? উনি তখন চিন্তিত। তারপর যখন আফিফ আসল। আফিফের খেলা দেখে বললেন- ও আগে নামে নাই কেন? একে তো আগে দেখিনি! আমি বললাম, আপা ও তুলনামূলকভাবে একদম নতুন এসেছে। মাত্র ১৯ বছর বয়স। ওর আসলে পাঁচে খেলার কথা ছিল। যাই হোক যেখানে খেলেছে সেট বড় কথা না। ভালো খেলেছে। উনি বললেন- ভালো খেলেছে, ওর খেলা দেখেছি।’

পাপন আরও বলেন, খেলা শেষ হওয়ার আগেও প্রধানমন্ত্রী ফোন করে বলেছেন, ‘আমার তো দোয়া করতে করতে গলা শুকিয়ে যাচ্ছে।’ উনি (প্রধানমন্ত্রী) প্রতিটা বলই দেখেছেন। ও (ধ্রুব) আউট হওয়ার আগে যে চার মারল, এটা দেখে বলেছেন- এই শটটা দারুণ খেলেছে। তাই খেলা শেষ হওয়ার পর পর ভাবলাম আমি একটু কথা বলিয়ে দেই। এত আফিফের কথা বলছেন যখন। যেহেতু অধিনায়ক সাকিবও আছে। ওদের সঙ্গে কথা বলেছেন। তাদের সঙ্গে কী কথা বলেছেন, আমি আসলে জানি না।

42 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Frank Dinar