ফেব্রুয়ারি ২৯, ২০১৬ ১:০২ পূর্বাহ্ণ

মৌলভীবাজারে ‘শ্রীহট্ট অর্থনৈতিক অঞ্চল’র উদ্বোধন করলেন প্রধানমন্ত্রী


রোববার, ২৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৬ ॥ সারাদেশে ১০টি অর্থনৈতিক অঞ্চলের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রোববার সকালে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলনে কেন্দ্র থেকে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে তিনি দেশের বিভিন্ন স্থানে এসব অর্থনৈতিক অঞ্চলের উদ্বোধন করেন। উদ্বোধনকৃত দেশের ১০টি অর্থনৈতিক অঞ্চলের মধ্যে সিলেট বিভাগের মৌলভীবাজারে শ্রীহট্ট অর্থনৈতিক অঞ্চলও রয়েছে।

এর ফলে নতুন দশটি অর্থনৈতিক অঞ্চলের যাত্রা শুরু হলো বাংলাদেশে; যার ফলে অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিতে গতি সঞ্চার হবে বলে আশা করছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

অর্থনৈতিক অঞ্চল প্রতিষ্ঠার প্রেক্ষাপট ব্যাখ্যা করতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী অনুষ্ঠানে বলেন, “আমরা সিদ্ধান্ত নিলাম, যত্র-তত্র সেখানে-সেখানে শিল্প গড়ে তোলা যাবে না। আমরা সমগ্র বাংলাদেশব্যাপী আমাদের উন্নয়ন করব।”

২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশকে মধ্যম আয়ের দেশ এবং ২০৪১ সালের মধ্যে উন্নত দেশে পরিণত করার লক্ষ্যে সমন্বিত উৎপাদন বৃদ্ধির জন্য আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন বর্তমান সরকার ১০০টি অর্থনৈতিক অঞ্চল করার উদ্যোগ নিয়েছে।

সরকার আশা করছে, ২০৩০ সালের মধ্যে এসব অর্থনৈতিক অঞ্চলে এক কোটি মানুষের কর্মসংস্থান হবে; পণ্য রপ্তানি করা যাবে ৪০ বিলিয়ন ডলারের; যা বর্তমান রপ্তানির দ্বিগুণেরও বেশি।

রোববার উদ্বোধন করা ১০টি অর্থনৈতিক অঞ্চলের মধ্যে চারটি হবে সরকারি ও বেসরকারি অংশীদারিত্বে (পিপিপি); বাকিগুলো বেসরকারি উদ্যোগে।

এগুলো হলো- চট্টগ্রামের মিরসরাই অর্থনৈতিক অঞ্চল, মুন্সিগঞ্জে আব্দুল মোনেম অর্থনৈতিক অঞ্চল, নরসিংদীতে একে খান অর্থনৈতিক অঞ্চল, গাজীপুরে বে অর্থনৈতিক অঞ্চল, নারায়ণগঞ্জে মেঘনা অর্থনৈতিক অঞ্চল, নারায়ণগঞ্জ ইন্ডাস্ট্রিয়াল অর্থনৈতিক অঞ্চল ও নারায়ণগঞ্জ আমান অর্থনৈতিক অঞ্চল, বাগেরহাটে মংলা অর্থনৈতিক অঞ্চল, কক্সবাজারে সাবরাং ইকো ট্যুরিজম পার্ক এবং মৌলভীবাজারে শ্রীহট্ট অর্থনৈতিক অঞ্চল।

বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষের (বেজা) মাধ্যমে এ উদ্যোগ বাস্তবায়িত হচ্ছে।

অনুষ্ঠানে জানানো হয়, বেজা ইতোমধ্যে ৪৬টি অর্থনৈতিক অঞ্চল অনুমোদন করেছে এবং আরও ১৩টি অঞ্চলের জন্য জায়গা নির্ধারণ করা হয়েছে।

শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, পরিকল্পনামন্ত্রী আহম মুস্তাফা কামাল, প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব আবুল কালাম আজাদ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সচিব সুরাইয়া বেগম, বেজার নির্বাহী চেয়ারম্যান পবন চৌধুরী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

নিউজটি শেয়ার করুন

error: আপনি কি খারাপ লোক ? কপি করছেন কেন ?? হাহাহ