অক্টোবর ১৮, ২০১৫ ৫:১৭ অপরাহ্ণ

মানুষের তৈরী ফাঁদে পড়ে মরল দুই হাতি


খবারের খোজেঁ বন ছেড়ে প্রায়ই নিকটবর্তী গ্রামে ঢুকে পড়তো হাতিগুলো। এসে ক্ষয়ক্ষতি করতো বিনষ্ট করতো বাড়িঘর ফসলি জমি। আর এর প্রতিকারে একবারে মেরেই ফেলা হলো হাতিদুটিকে। জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জে হাতিগুলোকে ফাঁদ পেতে হত্যাকরে গ্রামবাসী।

শনিবার রাতে উপজেলার সীমান্তবর্তী ডাংধরা ইউনিয়নের মাখনেরচর গ্রামের বাসিন্দারা বৈদ্যুতিক ফাঁদ পেতে হাতি দুটি মারে বলে জানান ওই ইউপির চেয়ারম্যান আব্দুর রশীদ মন্ডল।

তিনি বলেন, প্রায়ই বন্য হাতি পাথরেরচর, মাখনেরচর ও বাঘারচর গ্রামে ঢুকে ক্ষতি করে। শনিবার রাতে বিদ্যুৎসংযোগ দিয়ে ফাঁদ পাতে ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাবাসী।পরে ওই ফাঁদে পড়ে দুটি হাতি মারা যায়।

মৃত্যুর পর হাতি দুটির দাঁত, শুঁড়, কান, লেজসহ শরীরের বিভিন্ন অংশ এলাকাবাসী কেটে নিয়ে গেছে বলেও জানান তিনি।

বকশিগঞ্জের ডুমুরতলা বিটের বন কর্মকর্তা মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, ভারত সীমান্তবর্তী এলাকায় মাখনেরচর এলাকায় ঘটনাটি ঘটেছে।খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে যাচ্ছি।বন বিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারাও যাচ্ছেন।

ময়নাতদন্তের পর হাতি দুটি মাটি চাপা দেওয়া হবে বলে জানান তিনি। তবে এর পেছনে অন্য কোনো উদ্দ্যেশ্য ছিলো কিনা তাও খতিয়ে দেখতে বনবিভাগের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন পরিবেশবিদরা।

 
নিউজটি শেয়ার করুন

error: আপনি কি খারাপ লোক ? কপি করছেন কেন ?? হাহাহ