জানুয়ারি ১২, ২০১৬ ৮:৩৮ অপরাহ্ণ

সিলেটে পাঁচ ভাই রেস্টুরেন্ট সহ ৩টি প্রতিষ্ঠানকে জরিমানা


মঙ্গলবার সিলেট সিটি কর্পোরেশন মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করে নগরীর পাঁচভাই রেস্টুরেন্টসহ তিনটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে এই নিয়ম লংঘন করার কারণে জরিমানা করা হয়েছে।

বেলা ১২টায় সিলেট সিটি কর্পোরেশনের নির্বাহী ম্যাজিস্টেট মোঃ শরীফুজ্জামানের নেতৃত্বে এই অভিযান শুরু হয়।

সিটি কর্পোরেশনের কর্মকর্তারা জানান, এখন থেকে যেসব হোটেল-রেস্টুরেন্ট বা ব্যবসা প্রতিষ্ঠান সিলেট সিটি কর্পোরেশনের নির্দিষ্ট সময় এবং নির্ধারিত স্থান ব্যতীত যত্রতত্রভাবে ময়লা আবর্জনা ফেলে রাখবেন তাদের বিরুদ্ধে যথাযথ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

মঙ্গলবার প্রথমেই বন্দরবাজারের হাসান মার্কেটের গলির মার্কেটে অভিযান পরিচালন করা হয়। এসময় এই মার্কেটের জননী পেপার হাউজকে সিটি কর্পোরেশনের নির্দিষ্ট সময় ও নির্ধারিত স্থান ব্যতীত পাশ্ববর্তী ড্রেনের মধ্যে ময়লা ফেলার কারণে জরিমানা করা হয়।

এরপর লালবাজারের মার্কেটের পোল্ট্রির দোকানগুলোতে অভিযান পরিচালিত হয়। এসময় ময়লা আবর্জনা নির্ধারিত স্থানে না ফেলার কারণে ইত্যাদি পোল্ট্রি ফার্মকে জরিমানা করা হয়। এরপর জিন্দাবাজার এলাকার বিভিন্ন রেস্টুরেন্ট ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে অভিযান পরিচালনা করা হয়। অভিযানকালে পাঁচভাই রেস্টুরেন্টকে নির্ধারিত স্থানে ময়লা না ফেলে যত্রতত্রস্থানে ফেলার কারণে জরিমানা করা হয়।
বেলা ২টা পর্যন্ত মোবাইল কোর্ট পরিচালনাকালে বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানকে সতর্কও করে দেওয়া হয়।

অভিযান চলাকালে সিটি কর্পোরেশনের নির্বাহী ম্যাজিস্টেট মোঃ শরীফুজ্জামান জানান, সিটি কর্পোরেশনের নির্ধারিত ডাস্টবিনে এবং নির্দিষ্ট সময়ে ময়লা আবর্জনা ফেলার জন্য বারবার অনুরোধ করার পরও যারা তা লংঘন করছেন-পরিবেশ দূষন করছেন তাদের বিরুদ্ধে যথযাথ আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করা হচ্ছে। তাদের বিরুদ্ধে এই মোবাইল কোর্ট ভবিষ্যতেও অব্যাহত থাকবে।
অভিযান চলাকালে চীফ কনজারভেন্সী অফিসার মো: হানিফুর রহমান জানান, সিটি কর্পোরেশনের নির্দিষ্ট ডাস্টবিনে রাত ৮টা থেকে ১১টার মধ্যেই ময়লা আবর্জনা ফেলার জন্য বারবার তাগিদ দেওয়া স্বত্ত্বেও অনেকেই দীর্ঘদিন থেকে তা অনুসরণ করছেন না। বাসাবাড়ির এবং ব্যবসা প্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষকে সকল নগরবাসীর স্বার্থেই সিটি কর্পোরেশনের বেধে দেওয়া সময় এবং নির্ধারিত স্থানে ময়লা আবর্জনা ফেলার জন্য তিনি আহবান জানান।
অভিযানকালে মেট্রোপলিটন পুলিশ ফোর্স ছাড়াও সিটি কর্পোরেশনের কর্মকর্তাদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর, আনোয়ার হোসাইন, তানভীর আহমদ, জাবিরুল ইসলাম, রূপক চন্দ্র মালাকারসহ আরও অনেকে।

নিউজটি শেয়ার করুন

1322 বার মোট পড়া হয়েছে সংবাদটি
error: আপনি কি খারাপ লোক ? কপি করছেন কেন ?? হাহাহ