জুলাই ১৭, ২০১৬ ৯:৪১ অপরাহ্ণ

তুর্কিরা প্রমাণ করেছে জনগণই সব ক্ষমতার উৎস


কুলাউড়া সংবাদ :: তুরস্কের ব্যর্থ সামরিক অভ্যুত্থান প্রসঙ্গে বাংলাদেশের অবস্থান ব্যাখ্যা করতে গিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বাংলাদেশ অসাংবিধানিক পন্থায় ক্ষমতা দখল সমর্থন করে না।

তিনি বলেছেন, ‘বাংলাদেশ সব সময়ই অবৈধ ক্ষমতা দখলের বিরুদ্ধে। তুরস্কে অবৈধভাবে ক্ষমতা দখলের যে চেষ্টা হয়েছিল দেশটির জনগণ তা রুখে দিয়ে প্রমাণ করেছে জনগণই সব ক্ষমতার উৎস।’

শুক্রবার (১৫ জুলাই) তুরস্কের প্রেসিডেন্ট রিচেপ তায়েপ এরদোয়ানকে হটিয়ে ক্ষমতা দখলে সেনাবাহিনীর একটি অংশ সামরিক অভ্যুত্থানের চেষ্টা করে। বিপথগামী সেনা সদস্যদের অবৈধ ক্ষমতা দখলের ওই চেষ্টা জনগণের প্রবল প্রতিরোধের মুখে ভেস্তে যায়।

এই ঘটনায় সেনা সদস্য ও সাধারণ জনগণ মিলিয়ে দুই শতাধিক নিহত হয়েছে। শনিবারই তুরস্কের পূর্ণ নিয়ন্ত্রণ এরদোয়ান সরকার পুনঃপ্রতিষ্ঠিত করেছে।

এদিকে এই ব্যর্থ অভ্যুত্থানে জড়িত সেনা কর্মকর্তাদের ব্যাপকভাবে ধরপাকড় চলছে। ইতিমধ্যে ৬ হাজার জনকে আটক করা হয়েছে।

রোববার (১৭ জুলাই) বিকেল ৪টায় প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে সদ্য সমাপ্ত আসেম সম্মেলনের নানা দিক তুলে ধরতে অনুষ্ঠিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন। এক ঘণ্টার এই সংবাদ সম্মেলনে দেশি-বিদেশি বিভিন্ন গণমাধ্যমের প্রতিনিধিদের প্রশ্নের জবাব দেন শেখ হাসিনা।

সংবাদ সম্মেলনের শুরুতে মঙ্গোলিয়ার রাজধানী উলানবাটরে দুই দিনের একাদশ এশিয়া-ইউরোপ (আসেম) শীর্ষ সম্মেলনের অভিজ্ঞতা তুলে ধরেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমসহ বেসরকারি বিভিন্ন টেলিভিশন প্রধানমন্ত্রীর এই সংবাদ সম্মেলন সরাসরি সম্প্রচার করে।

নিউজটি শেয়ার করুন

269 বার মোট পড়া হয়েছে সংবাদটি
error: আপনি কি খারাপ লোক ? কপি করছেন কেন ?? হাহাহ