আগস্ট ১৩, ২০১৬ ৬:১৬ অপরাহ্ণ

গ্যাস দিয়ে ভাত-তরকারি রান্নার কোনো মানে হয় না


অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত বলেছেন, গ্যাসটা এত মূল্যবান সম্পদ যে এটা দিয়ে ভাত-তরকারি রান্নার কোনো মানে হয় না। গৃহস্থালিতে গ‌্যাস ব‌্যবহারের বিপক্ষে নিজের অবস্থান আবার তুলে ধরে এই ধারা থেকে সরকার বেরিয়ে আসছে বলে জানিয়েছেন তিনি।

শনিবার (১৩ আগস্ট) রাজধানীর কারওয়ান বাজারে পেট্রো সেন্টারে জ্বালানি নিরাপত্তা দিবসের এক অনুষ্ঠানে অর্থমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

আবুল মাল আবদুল মুহিত আরো বলেন, “আমরা ভেবেছিলাম, আমাদের দেশে প্রচুর গ্যাস রয়েছে। তাই ডমেস্টিক কনজাম্পশনে (গৃহস্থালিতে ব‌্যবহার) গ্যাস সরবরাহ করেছিলাম। এখন আমরা যা দেখছি, আমাদের কাছে গ্যাস যা আছে, তা একেবারেই যৎসামান্য। এটা এত মূল্যবান যে, এটা দিয়ে ভাত, চাল রান্না করা একেবারেই অপচয়। এটা আমাদের নিজেদের বোঝা উচিৎ, অন্যদের বোঝানো উচিৎ যে, রান্না- বান্নায় গ্যাসের ব্যবহার চলবে না।”

“এ নিয়ে আন্দোলন করে কোনো লাভ হবে না। চিৎকার করে কোনো লাভ হবে না। এটা কোনোভাবেই হবে না ” বলেন অর্থমন্ত্রী।

বাংলাদেশে উৎপাদিত গ্যাসের ১২ শতাংশ ব্যবহার হয় গৃহস্থালিতে রান্নার কাজে। সরকার নানা পদক্ষেপের মাধ‌্যমে গৃহস্থালিতে গ‌্যাস ব‌্যবহার নিরুৎসাহিত করছে। বাসা-বাড়িতে পাইপলাইনের গ‌্যাস সংযোগ আর না দেওয়ার পাশাপাশি সিলিন্ডারে এলপিজি আমদানি উৎসাহিত করছে।

গ‌্যাস সঙ্কটের কারণে ২০০৯ সাল থেকে গৃহস্থালিতে নতুন আর গ‌্যাস সংযোগ দেওয়া হচ্ছে না বললেই চলে। বর্তমানে দেশে প্রতিদিন প্রায় ৩ হাজার মিলিয়ন ঘনফুটের মতো গ্যাসের চাহিদা রয়েছে। এর বিপরীতে উৎপাদন দুই হাজার মিলিয়ন ঘনফুটের কিছু বেশি।

নিউজটি শেয়ার করুন

223 বার মোট পড়া হয়েছে সংবাদটি
error: আপনি কি খারাপ লোক ? কপি করছেন কেন ?? হাহাহ