অক্টোবর ১৩, ২০১৫ ১:৫৪ পূর্বাহ্ণ

পুরো কোরআন শরীফ হাতে লিখে তাক লাগালেন সুমন


কুলাউড়া সংবাদ , মঙ্গলবার ১৩ অক্টোবর ২০১৫

এককালে পবিত্র কোরআন হাতে লেখার প্রচলন ছিল। সে সময় এটা একটি শিল্পও ছিল। তবে মেশিন আবিষ্কার হওয়ার পর হাতে লেখার প্রচলন উঠে গেছে বললেই চলে। এই যুগেও পুরো কোরআন হাতে লিখে তাক লাগিয়ে দিলেন বাংলাদেশি যুবক হুমায়ুন কবির সুমন।
হুমায়ুনের বাড়ি বরিশাল জেলার বাকেরগঞ্জ উপজেলার বারড়িয়া গ্রামে। তার বাবার নাম রজব আলী শিকদার। কোরআন শরিফটি তার লিখতে সময় লেগেছে প্রায় তিন বছর।

১৯৯৯ সালে এসএসসি পাস করা হুমায়ুন কোনো মাদ্রাসায় পড়েনি। আরবি পড়া ও শেখার জন্য তার কোনো প্রাতিষ্ঠানিক ডিগ্রিও নেই। সম্পূর্ণ নিজ ইচ্ছায় ও উদ্যোগে আরবি লেখা শিখেছেন হুমায়ুন। তার ইচ্ছা ছিল বড় চিত্র শিল্পী হওয়ার। কিন্তু পরিবারের আর্থিক অস্বচ্ছলতার জন্য তার এ ইচ্ছা পূরণ হয়নি।

হুমায়ুন হাতে লেখা কোরআনে কারিমের অঙ্গসজ্জায় চমৎকার ক্যালিওগ্রাফিও ব্যবহার করেছেন। হুমায়ুনের ইচ্ছা রয়েছে, ভবিষ্যতে বিশ্বের সবচেয়ে বড় হাতের লেখা কোরআনে কারিম হাতে লিখে বিশ্ব রেকর্ড করার।

হুমায়ুন ঢাকার গাউছিয়া মার্কেটের একটি শোরুমের সহকারী ম্যানেজার হিসেবে কর্মরত। ১৯৮২ সালে জন্ম নেওয়া হুমায়ুন এক ছেলে ও এক মেয়ের জনক।

নিউজটি শেয়ার করুন

264 বার মোট পড়া হয়েছে সংবাদটি
error: আপনি কি খারাপ লোক ? কপি করছেন কেন ?? হাহাহ